Bike Loan

Upcoming Cars: CNG ও EV ভেরিয়েন্ট সহ তিনটি দুর্দান্ত গাড়ি আছে টাটা মোটরস! জানুন বিস্তারিত

Gourav Mondal

Published on:

tata-motors-upcoming-car-cng-and-ev-nexon-altroz-racer

গাড়ির বাজারে টাটা মোটরস (Tata Motors)-র জনপ্রিয়তা সম্পর্কে কিছু বলার অপেক্ষা রাখেনা। একের পর এক অত্যাধুনিক প্রযুক্তি যুক্ত গাড়ি বাজারে নিয়ে আসছে এই গাড়ি নির্মাণকারী সংস্থা (Upcoming Cars)। গত বছর অর্থাৎ 2023 সালে SUV সহ আরো বেশ কয়েকটি নতুন গাড়ি লঞ্চ করেছে টাটা মোটরস। 

চলতি বছরও একাধিক নতুন গাড়ি নিয়ে আসার পরিকল্পনা করেছে এই সংস্থা। নতুন গাড়ি গুলির মধ্যে রয়েছে 2 টি SUV এবং একটি হ্যাচব্যাক। নতুন নিয়ে আসা গাড়িগুলির মধ্যে আবার একটি CNG ও একটি EV আসতে চলেছে (Upcoming Cars)। দেখে নিন টাটা মোটরসের নতুন লঞ্চ হওয়া গাড়িগুলি ঠিক কি কি ফিচারস নিয়ে বাজারে আসতে চলেছে।

১) টাটা নেক্সন সিএনজি (Tata Nexon CNG)

2024 সালের প্রথম মাসেই টাটা মোটরস এই টাটা নেক্সন CNG গাড়িটি উন্মোচন করেছে। ইতিমধ্যেই দেশের প্রথম অটোমেটিক ট্রান্সমিশন যুক্ত সিএনজি গাড়ি উন্মোচন করেছে টাটা মোটরস (Tata Motors)। সেই গাড়ি হল টাটা টিয়াগো ও টাইগার সিএনজি। সেই গাড়ি গুলির মতো অত্যাধুনিক সুযোগ সুবিধা থাকবে টাটা নেক্সনে।

এই কারণে ভারতে অত্যন্ত জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে SUV টাটা নেক্সন। ফ্যাক্টরি ফিটেড টারবো চার্জ CNG প্রযুক্তি দিয়ে নির্মাণ করা হয়েছে এই গাড়িটি। এটি উন্নত পারফরমেন্স এবং দুর্দান্ত মাইলেজ দিতে সক্ষম। এই গাড়িতে থাকবে 1.2 লিটার পেট্রল ইঞ্জিন সঙ্গে টারবো চার্জ সিএনজি সিলিন্ডার। এগুলি ছাড়া গাড়ির অন্যান্য ফিচারস মোটামুটি এক রকমই থাকবে। তবে এর দাম বর্তমান মডেলের তুলনায় 1 লাখ টাকা বেশি হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

২) টাটা অলট্রোজ রেসার (Tata Altroz Racer)

টাটা মোটরস-এর তরফ থেকে ইতিমধ্যেই অলট্রোজ রেসার গাড়িটি উন্মোচন করা হয়েছে। অলট্রোজ গাড়ির স্পোর্টি ভার্শন হতে চলেছে হ্যাচব্যাক। এই গাড়িটিতে 1.2 লিটার টারবো পেট্রল ইঞ্জিন পাওয়া যাবে। শক্তিশালী এই ইঞ্জিন সর্বোচ্চ 120 হর্সপাওয়ার শক্তি তৈরি করতে সক্ষম। এটি স্ট্যান্ডার্ড মডেলের তুলনায় 10 হর্সপাওয়ার বেশি ক্ষমতা উৎপন্ন করতে পারে। সেই সঙ্গে এই গাড়িতে 6 স্পিড অটোমেটিক ট্রান্সমিশন পাওয়া যাবে। জানা যাচ্ছে উন্নত মানের এই গাড়িটি জুন মাসে বাজারে লঞ্চ করতে পারে টাটা মোটরস।

৩) টাটা কার্ভ (Tata Curvv EV)

সংস্থার তরফ থেকে চলতি বছর জানুয়ারি মাসে এই গাড়িটি প্রথম প্রকাশ্যে আনা হয়। তবে গাড়িটি জুনে লঞ্চ হওয়ার কথা থাকলেও তা পিছিয়ে দিয়েছে কোম্পানি। সংস্থার দেওয়া তথ্য মারফত জানা গেছে সেপ্টেম্বর মাসে লঞ্চ হতে পারে এই চার চাকা গাড়িটি। বেশ কিছু নতুন ফিচারস এর সঙ্গে বাজারে লঞ্চ হবে এই গাড়ি। কূপ ডিজাইনের সঙ্গে এতে পাওয়া যাবে স্মার্ট ফিচার্স। টাটা কার্ভ গাড়িটি পেট্রল ও ডিজেলের পাশাপাশি ইলেকট্রিক ব্যাটারিতেও বিক্রি হবে বাজারে। 

এই গাড়িতে থাকবে 1.2 লিটার পেট্রল ইঞ্জিন। এই ইঞ্জিন সর্বোচ্চ 125 হর্সপাওয়ার শক্তি তৈরি করতে সক্ষম। গাড়িতে টারবো পেট্রল ইঞ্জিন পাওয়া যাবে। সেই সঙ্গে থাকবে 1.5 লিটার ডিজেল ইঞ্জিন। ইলেকট্রিক ভ্যারিয়েন্টটি ফুল চার্জে 450 থেকে 500 কিলোমিটার রেঞ্জ দ্বারা পরিচালিত হতে পারে। জানা গেছে 2024 সালে লঞ্চ না হলে 2025 সালের একেবারে শুরুর দিকেই বাজারে চলে আসবে এই গাড়িটি।