Bike Loan

Bajaj Pulsar N125: পকেটে টাকা না থাকলেও খুব সহজেই পছন্দের বাইক ঘরে! চেহারাতে ফিদা সবাই, প্রতি মাসে 4 হাজার কিস্তি মাত্র

Aindrila Dhani

Updated on:

bajaj-pulsar-n125-emi-plan

ভারতে এখন 125cc সেগমেন্টের রমরমা। বিশেষতঃ পূর্ব ভারতীয় অঞ্চলের বিহার রাজ্যে এই ধরনের বাইকের চাহিদা খুব দ্রুত হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। এবার Bajaj Auto এই সেগমেন্ট নতুন মডেল নিয়ে এসেছে। আমরা কথা বলছি Bajaj Pulsar N125-এর সম্পর্কে। এতে আপনারা ডিজিটাল ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার পেয়ে যাবেন। এই বাইক প্রতি লিটারে 50 কিলোমিটার মাইলেজ দিতে সক্ষম। এর দাম জানেন কত? শুনলে অবাক হয়ে যাবেন।

বাজাজ অটো শক্তিশালী ইঞ্জিন এবং দুর্দান্ত ফিচারের কারণে আধিপত্য বিস্তার করতে সক্ষম হয়েছে। এই কোম্পানী 2024 সালে আধুনিক প্রযুক্তি ও দুর্দান্ত মাইলেজ সহ যুবকদের জন্য 125cc সেগমেন্টে নতুন বাইক লঞ্চ করেছে। ভারতে অটোমোবাইল সেক্টরের গ্রাফ দ্রুত হারে উপরের দিকে উঠে চলেছে। এখানে আপনারা বিভিন্ন ধরনের বাইক পেয়ে যাবেন। তবে বর্তমান মূল্য বৃদ্ধির বাজারে অনেকের পক্ষেই বেশি টাকায় বাইক কেনা সম্ভব হয়ে ওঠেনা। এই বাইকটি আপনারা অনেক কম দামে কিনতে পারবেন। এছাড়া চাইলে ফাইনান্স প্লানে সহজ কিস্তির মাধ্যমে Bajaj Pulsar N125 বাড়ি নিয়ে যেতে পারবেন।

Bajaj Pulsar N125: ফিচার্স

বর্তমান প্রযুক্তির সাথে তাল মিলিয়ে এই বাইকে আধুনিক ফিচারের ব্যবহার করেছে কোম্পানি। এতে আপনি সেমি ডিজিটাল ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, গিয়ার ইন্ডিকেটর, এলইডি ডিআরএলএস লাইট, ডিস্ক ব্রেক ইত্যাদি পেয়ে যাবেন।

Bajaj Pulsar N125: ইঞ্জিন

Bajaj Pulsar N125-এর ইঞ্জিনের কথা বলতে গেলে, এতে রয়েছে 124.45cc-র শক্তিশালী DTS-i ইঞ্জিন। যা 8500 rpm-এ 11.8 bhp শক্তি এবং 7000 rpm-এ 11 Nm টর্ক উৎপন্ন করে। কোম্পানি দাবি করেছে, এই বাইক প্রতি লিটারে 46.9 কিলোমিটার মাইলেজ দিতে সক্ষম।

Bajaj Pulsar N125: দাম ও EMI

ভারতীয় বাজারে Bajaj Pulsar N125-এর অন রোড দাম 1 লাখ 18 হাজার 898 টাকা। আপনি যদি এটি ফাইন্যান্স প্ল্যানে কিনতে চান তবে আপনাকে 50 হাজার 944 টাকা ডাউন পেমেন্ট করতে হবে। এরপর 3 বছরের জন্য 10 শতাংশ সুদের হারে প্রতি মাসে 4 হাজার 79 টাকা করে EMI জমা করতে হবে।