Bike Loan

Bajaj Pulsar CNG: বাইক বাজারে Bajaj-র বড় চমক! দেশের প্রথম CNG বাইক, দাম থাকবে মধ্যবিত্তের নাগালে

Aindrila Dhani

Published on:

bajaj-pulsar-cng-launch-date

বাজারে আসতে চলেছে Bajaj CNG মোটরসাইকেল। এখনও পর্যন্ত এই বাইকের লঞ্চ সম্বন্ধে কোনো তথ্য কোম্পানি জানায়নি। এই মডেলটি লঞ্চ হওয়ার পরে বাজারের সর্বপ্রথম CNG চালিত মোটরসাইকেল হবে এটি। এই মডেলটিকে আবার টেস্টিং-এর জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে। জেনে নিন বিস্তারিত।

Bajaj Pulsar CNG বাইকের ফিচার্স

Bajaj Auto তাদের সর্বপ্রথম CNG চালিত মোটরসাইকেল ভারতে লঞ্চ করার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে। বিভিন্ন অনুষ্ঠানে Bajaj Auto-র এই মডেলটি টেস্টিং-এর জন্য আনা হয়। সম্প্রতি এই বাইকের স্পাই শট আমাদের সামনে এসেছে। Bajaj Pulsar-এর অন্যান্য কমিউটার বাইকের তুলনায় এই মডেল আলাদা ধরনের। এই বাইকটির সামনে LED হেডলাইট ও ছোটো কাউল রয়েছে। এছাড়া এতে রয়েছে হ্যান্ডগার্ড ও 5 স্পোক হুইল। এই CNG বাইকের সামনের চাকায় সিঙ্গেল ডিস্ক ব্রকে দেওয়া হয়েছে। এটি সম্ভবত একাধিক ভেরিয়েন্টে উপলব্ধ হবে। এতে সিঙ্গেল চ্যানেল ABS সহ একটি ভেরিয়েন্ট থাকতে পারে। Bajaj Auto-র CNG বাইকের সামনে টেলিস্কোপিক ফোর্ক আর পিছনে মনোশক সাসপেনশন থাকবে।

Bajaj CNG বাইকের ইঞ্জিন

ফাঁস হওয়া স্পাই শটে এই বাইকের ডিজাইন খানিকটা দেখা গেছে। এতে ডিসটিঙ্কটিভ কমিউটার বাইকের ডিজাইন করা হয়েছে। এই মডেলটি ডুয়াল ফুয়েল সিস্টেম সহ লঞ্চ হবে। অর্থাৎ এই বাইকটি CNG -র পাশাপাশি পেট্রোলেও চলবে। আশা করা যায়, Bajaj Auto-র CNG মোটরসাইকেলটি লো রানিং কস্ট সম্পন্ন হবে। এই মডেল বড়ো শহর আর ছোটো শহরের রাস্তায় চলাচলের জন্য তৈরি করা হয়েছে। আগামী কয়েক মাসের মধ্যে এই মোটরসাইকেল ভারতীয় বাজারে লঞ্চ হয়ে যেতে পারে। এই কমিউটার বাইকে 100-125 cc ইঞ্জিন থাকতে পারে। রিপোর্ট অনুযায়ী Bajaj তার এই বাইকের নাম Bruzer রাখতে পারে। এই মডেলের এক্স শোরুম মূল্য 80 হাজার টাকা হতে পারে।